করোনা জয় করে ইএনও’র সাথে সৌজন্য সাক্ষাৎ করলেন আলহাজ্ব ইউসুফ দেওয়ান

Ads

নারায়নগঞ্জের সোনারগাঁ উপজেলার নোয়াগাঁও ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব ইউসুফ দেওয়ান প্রানঘাতী করোনা ভাইরাসকে জয় করে  মঙ্গলবার(২৮ অক্টোবর) বিকেলে সোনারগাঁ উপজেলা নির্বাহী অফিসারের সাথে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেন।ফুলের তোড়া দিয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে শুভেচ্ছা জানান তিনি।এ সময় তিনি বলেন, মহান রাব্বুল আলামিনের অশেষ কৃপায় এবং মানুষের ভালোবাসায় আমি করোনাকে জয় করে আপনাদের মাঝে  ফিরে এসেছি।তবে আমি শারীরিকভাবে খুবই দূর্বল ,ডাক্তার আমকে বিশ্রামে থাকতে বলেছেন, তাই আমি আমার প্রানপ্রিয় নোয়াগাঁও বাসীর সাথে আপাতত দেখা করতে পারছি না।সুস্থ হয়েই সকলের সাথে দেখা করবো ইনশাল্লাহ।এ সময় তিনি   সকলের নিকট  দোয়া কামনা করেন।উল্লেখ্য, আলহাজ্ব ইউসুফ দেওয়ান দিনরাত একাকার করে মানুষের জন্য নিজের জীবনকে উৎসর্গ করে দিয়েছিলেন ও টানা প্রায় ১০০ দিন পরিবার পরিজন রেখে ইউনিয়ন বাসীর সেবায় নিয়োজিত ছিলেন এই করোনা যোদ্ধা।পরবর্তীতে তিনি নিজেই করোনায় আক্রান্ত হন।(২ অক্টোবর) সকালে নমুনা পরিক্ষার রিপোর্টে তার করোনা পজেটিভ আসে।তিনি প্রথমে এপোলে হসপিটাল বসুন্ধরায় চিকিৎসা নেন। পরে তিনি  বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন। দেশের করোনা পরিস্থিতে মানুষ যখন কর্মহীন হয়ে পড়েছিল ঠিক সেই মুহূর্তে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে মানুষের বাড়িতে বাড়িতে গিয়ে খাদ্য সামগ্রী পৌঁছে দিয়েছেন। তাদের খোঁজ খবর নিয়েছেন। সাধারন মানুষের ডাকে সাড়া দিয়ে কাজ করে আসছিলেন অবিরত।তথ্য সূত্রে জানা যায়, গত ২৬ মার্চ থেকে সারাদেশে যখন করোনার কারণে সকল ধরনের প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দেয় সরকার তখন থেকেই সাধারণ মানুষের কথা চিন্তা করে নিজের স্ত্রী, পুত্র ও একমাত্র আদরের নাতনীকে রেখে করোনার হাত থেকে সাধারণ মানুষকে সচেতন করতে নেমে পড়েন এই করোনা যোদ্ধা। করোনার হাত থেকে সাধারণ জনগণকে বাচাঁতে হ্যান্ড স্যানেটাইজার, মাক্স ও লিফলেট বিতরণ করেছেন। করোনার কারণে কর্মহীন হওয়া জনগণকে খাদ্য সামগ্রী উপহার দিয়েছেন। রাত দিন অক্লান্ত পরিশ্রমের কারণে নোয়াগাঁও ইউনিয়নে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত সবাই সম্পূর্ণ সুস্থ হয়েছন।

Ads
আরও পড়ুন
Loading...